March 2, 2021, 5:29 pm

#
ব্রেকিং নিউজঃ
কাকলী ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে (কোভিড-১৯) ভ্যাক্সিন ফ্রী রেজিষ্ট্রেশন কার্যক্রম উদ্বোধন।দেশব্যাপী সাংবাদিক হত্যা মামলা-হামলা হয়রাণীর প্রতিবাদে কাল কলম বিরতি।শহিদুল আলম পাটোয়ারী গণ পাঠাগার’র শুভ উদ্বোধন।ঢাকা আইনজীবী সমিতি নির্বাচনে সভাপতি বাতেন, সাধারণ সম্পাদক আলী।তুরাগে মা এন্টারপ্রাইজ (ধউর) “র শুভ হালখাতা।১২ দফা দাবিতে বাংলাদেশ রেলওয়ে পোষ্য সোসাইটির কর্মসূচি ঘোষণা।লাকসামে কাউন্সিলর মোহাম্মদ উল্লাহ ও নাসিমা আক্তারকে কে গণসংবর্ধনা।লাকসামে কালিয়াপুরে মেলায় ৩ যুবক ছুরিকাহত.রূপনগর সমাজ কল্যাণ সমিতি বাকলিয়া থানা কমিটির উদ্যোগে ছিন্নমূল পথশিশুদের, খাবার ও মাস্ক বিতরণ।লাকসামে দিনের ওসি যখন রাতের প্রহরী।

গৌরীপুরে এলজিএসপি’র প্রকল্পে লুটপাটের মহোৎসব, নেই তদারকি সংশ্লিষ্ঠদের।

 গৌরীপুর প্রতিনিধিঃ ময়মনসিংহ গ্রামীণ অবকাঠামো শক্তিশালী করতে স্থানীয় সরকার বিভাগের গুরুত্বপূর্ণ উদ্যোগ- লোকাল গভর্নেন্স সাপোর্ট প্রজেক্ট- ৩ ( এলজিএসপি-৩)। স্থানীয় সরকারের নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিদের দ্বারা সরাসরি বাস্তবায়িত এই প্রকল্পটি বাস্তবায়ন জাতীয়ভাবে অত্যান্ত গুরুত্বপূর্ণ হলেও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানদের কাছে এটি লুটপাটের মহোৎসব বলেই খ্যাত! যেহেতু প্রকল্পের কাজ ইউনিয়ন পরিষদ কর্তৃক বাস্তবায়িত হয় তাই স্বেচ্ছাচারিতা, অনিয়ম, নিম্নমানের মালামাল ব্যবহারসহ এমন কোন অনিয়ম নেই যা এলজিএসপির কাজে হয় না। এমনকি প্রায় শতভাগ ইউনিয়নে চেয়ারম্যান বা তার নিকটাত্মীয়রাই ঠিকাদারি করতে দেখা যায় এলজিএসপির কাজে! সাংবাদিকেরা বার বার চেয়েও চেয়ারম্যানদের কাছ থেকে পান না প্রকল্পের তালিকা। ময়মনসিংহ গৌরীপুর উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নে ঘুরে এমন চিত্রই পাওয়া গেছে। এলজিএসপি কাজের মূল তদারকি সংস্থা স্থানীয় সরকার বিভাগ। ময়মনসিংহ স্থানীয় সরকার বিভাগ এসব কাজের যথাযথ তদারকি না করায় ইউপি চেয়ারম্যানদের স্বেচ্ছাচারিতা ও অনিয়ম চরম পর্যায়ে পৌঁছেছে। বিশেষ করে ৫ নং সহনাটি ইউনিয়নের এলজিএসপির কাজ অনিয়ম আর দূর্নীতিতে ভরপুর। উপজেলা প্রশাসন থেকে বার বার তাগিদ দিলেও চেয়ারম্যান পাত্তাই দেন না কাউকে। বিষয়টি অপকটেই স্বীকার করলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার হাসান মারুফ রাহাত। তিনি জানান – সহনাটি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এর কাজে অনেক অভিযোগ ও গাফিলতি রয়েছে। এর পূর্বেও এই ইউনিয়নের এলজিএসপির কাজ অনিয়মের জন্য বন্ধ করে দেয়া হয়েছিল কিন্তু তিনি সংশোধন না হয়ে বিভিন্ন জনের মাধ্যমে সুপারিশ করান। সহনাটি ইউনিয়নের গিধাউষা গ্রামে এলজিএসপির চলমান সাড়ে ৫০০ মিটার সিসি ঢালাই রাস্তার কাজে জানা গেছে ইউপি চেয়ারম্যান নিজেই ঠিকাদারি করছেন। প্রকল্পটির জন্য ৫ লাখ ৬৭ হাজার টাকার বেশি বরাদ্দ রয়েছে, তবুও ব্যবহার করা হচ্ছে অত্যান্ত নিম্নমানের ইট ও সুরকী। ইটের সলিং প্রায় ৩/৫ ইঞ্চি ফাঁক ফাঁক রয়েছে। ইটের উপর বালু না দিয়ে রাস্তার পাশ থেকে মাটি কেটে ইটের উপর দেয়া হয়েছে। আর তার উপরেই চলছে নিম্নমানের সুরকি দিয়ে নামমাত্র বালু সিমেন্টের প্রলেফ! এলাকায় লোকজন জানান- চেয়ারম্যান নিজেই দাঁড়িয়ে থেকে কাজ করাচ্ছেন, তারা কার কাছে অভিযোগ দিবেন! এসময় অনেকেই ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যাক্ত করে বলেন- এ রাস্তা ১ মাসও ঠিকবে না। সহনাটি ইউনিয়ন পরিষদ এর চেয়ারম্যান মোঃ আব্দুল মান্নান প্রকল্পে অনিয়মের বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন- বরাদ্দ কম, বর্ষাকালে এখানে প্রচুর কাদা হয়, তাই রাস্তাটি পাকা করছি।

#

     আরো পড়ুন:

পুরাতন খবরঃ

শুক্র শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০৩১