January 27, 2021, 10:30 pm

#
ব্রেকিং নিউজঃ
লাকসামে মাদ্রাসা প্রিন্সিপালকে লাঞ্চিত করার ঘটনায় প্রধান ২ আসামী গ্রেফতার।কুবি শিক্ষার্থীর ছবি তুলে বিশ্বজয়।গৌরীপুরে ১শত ২টি গৃহহীন পরিবার পাচ্ছে পাকা ঘর।গৌরীপুর পৌর নির্বাচনে সাংবাদিকদের সহযোগিতা চাইলেন স্বতন্ত্র প্রার্থী সৈয়দ রফিক।সাহসী পুলিশ অফিসারের মধ্যে অন্যতম তুরাগ থানার এস আই নিয়াজ।গৌরীপুর পৌরসভা নির্বাচনে আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে প্রার্থীদের জরিমানা।সিরাজগঞ্জ ৫ উপজেলায় পৌর নির্বাচন সম্পন্ন।পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের গবেষণা সহায়তা পেলেন কুবি শিক্ষক।বেলকুচি পৌর নির্বাচনে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী সাজ্জাদুল হক রেজা নির্বাচিত।সিরাজগঞ্জ জেলায় পরাজিত কাউন্সিলর প্রার্থীর সমর্থকদের হামলায় বিজয়ী কাউন্সিলর তারিকুল ইসলাম (৪৫) নিহত।

কুবিতে একাংশের কমিটি গঠনে আরেকাংশের প্রতিবাদ লিপি।

আজ ৭ ডিসেম্বর (বুধবার) প্রতিবাদলিপি দেওয়া অংশের আহ্বায়ক ড. জি এম মনিরুজ্জামান এবং সদস্য সচিব মোহাম্মদ মোকাদ্দেস-উল- ইসলাম স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই প্রতিবাদ জানানো হয়। প্রতিবাদ লিপিতে বলা হয়, কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় বঙ্গবন্ধু পরিষদ ২০১০ সাল থেকে বঙ্গবন্ধুর আদর্শিক চেতনার চর্চা করে আসছে। তারই ধারাবাহিকতায় বঙ্গবন্ধু পরিষদের গঠনতন্ত্র মোতাবেক প্রতিবছরই নতুন কমিটি ঘোষণা করা হয়। কিন্তু সে নিয়মের ব্যত্যয় ঘটিয়ে ২০১৮ সালে গঠিত বঙ্গবন্ধু পরিষদের কার্যনির্বাহী কমিটি ২০১৯ ও ২০২০ সালের নতুন কমিটি গঠন করতে তালবাহানা করে এবং ক্ষমতা কুক্ষিগত করে তিন বছর অতিবাহিত করে বঙ্গবন্ধুর চেতনাকে প্রশ্নবিদ্ধ করে। ফলে বঙ্গবন্ধু পরিষদের সাধারণ সদস্যবৃন্দ এই স্বেচ্ছাচারী অথর্ব ও অবৈধ কমিটির দুষ্ট চক্র থেকে পরিত্রাণ পাওয়ার জন্য গত ৪ ডিসেম্বর ২০২০ দুই-তৃতীয়াংশ শিক্ষকের মতামতের ভিত্তিতে বঙ্গবন্ধু পরিষদ গঠনের লক্ষ্যে অধ্যাপক ড. জি এম মনিরুজ্জামানকে আহ্বায়ক করে পাঁচ সদস্য বিশিষ্ট একটি আহ্বায়ক কমিটি গঠন করে। বঙ্গবন্ধু পরিষদের গঠনতন্ত্র অনুচ্ছেদ-৮ মোতাবেক উপর্যুক্ত কমিটি গঠিত হয়। এছাড়াও প্রতিবাদ লিপিতে আরও বলা হয়, গত ৫ জানুয়ারি কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের একটি ক্ষুদ্র অংশ দুই-তৃতীয়াংশ শিক্ষকের মতামতকে উপেক্ষা ও অবজ্ঞা করে নিজেদের হীন স্বার্থ চরিতার্থ, বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নয়ন কার্যক্রম ব্যাহত ও বিবেদের রাজনীতি করার লক্ষ্যে বঙ্গবন্ধু পরিষদের নতুন কমিটি ঘোষণা করে। যা বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনার পরিপন্থী। আমরা এহেন অযৌক্তিক, অবৈধ ও অনিয়মতান্ত্রিক কর্মকাণ্ডের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই। উল্লেখ্য যে, গত ১৩ ডিসেম্বর শিক্ষক সমিতির নির্বাচনকে কেন্দ্র করে বঙ্গবন্ধু পরিষদে দৃশ্যমান বিভক্তি দেখা দেয়। পূর্বের বঙ্গবন্ধু পরিষদের প্রতি অনাস্থা জ্ঞাপন করে নতুন করে বঙ্গবন্ধু পরিষদ গঠন করতে বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ড. জি. এম. মনিরুজ্জামানকে আহবায়ক এবং একই বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. মোকাদ্দেস-উল-ইসলামকে সদস্য সচিব করে ৫ সদস্যের ‘মনির-বিদ্যুৎ প্যানেল’ গঠন করে শিক্ষকদের অপর অংশ। গঠিত নতুন কমিটি নিয়ে অধ্যাপক ড. মনিরুজ্জামান বলেন, ‘এক বছরের কমিটি তিন বছর পার করে এখন আহবায়ক কমিটি না দিয়ে নতুন কমিটি দেওয়া গঠনতন্ত্র বিরুদ্ধ। আমরা বিশ্ববিদ্যালয়ের সংখ্যাগরিষ্ঠ শিক্ষকের সাথে কথা বলে গণতান্ত্রিক পদ্ধতিতে আহবায়ক কমিটি করেছি, সেই মোতাবেকই আমাদের পরবর্তী কমিটি গঠিত হবে।’ এদিকে প্রতিবাদ দেওয়ার ঘটনায় বঙ্গবন্ধু পরিষদের বিগত কমিটির সভাপতি কাজী ওমর সিদ্দিকী বলেন, ‘আমাদের পরিষদের গঠনতন্ত্র মেনে সাধারণ সভা ডেকে গণতান্ত্রিক উপায়ে কমিটি গঠন করা হয়েছে। কারো কমিটি পছন্দ না হলে সমর্থন না করার কথা জানাতে পারে। তবে প্রতিবাদ করার বা প্রতিবাদলিপি দেওয়ার সুযোগ নেই।’

#

     আরো পড়ুন:

পুরাতন খবরঃ

শুক্র শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১