November 30, 2020, 1:32 pm

#
ব্রেকিং নিউজঃ
যুব স্বেচ্ছাসেবক লীগ চট্টগ্রাম জেলা কমিটির মাসিক সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত।সাপাহারে বীর মুক্তযোদ্ধার রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন!স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন রূপনগর সমাজ কল্যাণ সমিতি মাদকের বিরুদ্ধে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন। নাসিরনগরে কৃষকদের মাঝে বিনামূল্যে সার ও বীজ বিতরণ উদ্ভোধন করেন – সংগ্রাম এমপি।তুরাগে গাঁজাসহ এক মাদক ব্যবসায়ী গ্রেপ্তার।লাকসাম “মুক্তি সোস্যাল অর্গানাইজেশন”এর সহায়তা কিডনি রোগী শারমিনকে ৫১,২৫০ টাকা অনুদান হস্তান্তর।ধান-চালের দর বেঁধে দেয়ার সুফল পাচ্ছে মানুষ- খাদ্যমন্ত্রী।কুমিল্লায় র‌্যাবের অভিযানে এ্যাম্বুলেন্স সিএনজিসহ বিপুল পরিমান ফেন্সিডিল গাঁজা ইয়াবা উদ্ধার! আটক-৩।কুমিল্লার লালমাইয়ে যুবলীগের ৪৮তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত।সাপাহারে পল্লী বিদ্যুতের বিভিন্ন অনিয়মের বিরুদ্ধে মানববন্ধন।

এসএম ট্রেডিংয়ের ব্যবসার আড়ালে গ্রাহকের টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ।

নিজস্ব প্রতিবেদক :

নেই বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অনুমোদন, নেই মার্কেটে প্রোডাক্ট। তারপরও ডিলারশীপ নিয়োগ, চাকরি দেয়া, ও ফ্ল্যাট বিক্রির নামে প্রতারণা করে শতশত গ্রাহকের কাছ থেকে টাকা হাতিয়ে নেয়ার বিস্তর অভিযোগ উঠেছে “এসএম ট্রেডিং” মাল্টি লেভেল মার্কেটিং (এমএলএম) কোম্পানির বিরুদ্ধে। আর এটি পরিচালনা করছেন সোহরাব হোসেন ওরফে শুভ চৌধুরি নামের এক প্রতারক।

সরেজমিন দেখা যায়, এস এম ন্যাচারাল, ইয়েস ইলেক্ট্রনিক্স কোম্পানি, এস এম ইলেক্ট্রনিক্স অ্যান্ড হাউজিং লিমিটেড নামের প্রতিষ্ঠানের নামে চলছে এই ব্যবসা। রাজধানীর উত্তরা সাত নম্বর সেক্টরে ২৮ নম্বর রোডের আট নম্বর বাসার প্রথম তলায় ফ্ল্যাট ভাড়া নিয়ে অফিস খুলে বসেছে তারা।

এই অফিসের নাম দেয়া হয়েছে এস এম ইলেক্ট্রনিক্স অ্যান্ড হাউজিং লিমিটেড। যেখানে দেখা যায়, ইলেক্ট্রনিক্সের বিভিন্ন পণ্য ও হাউজিং ব্যবসা ফ্ল্যাট বেচা-কেনার অফিস। এছাড়াও খিলক্ষেত, কুড়িল বিশ্বরোড ও পুরানো পল্টনে রয়েছে তাদের অফিস। এভাবে প্রতারণার দোকান খুলে বসেছে এই প্রতারক চক্র।

প্রত্যেকটি অফিস এলাকায় গেলে পাশের দোকানী ও ঐ ভবনগুলোর অন্য ব্যবসায়ীরা জানান, এরা এমএলএম ব্যবসার নামে গ্রাহকের সাথে প্রতারণা করে বলে জানতে পারি। কেন এমন মনে হলো জানতে চাইলে তারা বলেন , মাঝে মাঝেই ভুক্তভোগীরা পুলিশ সাংবাদিক নিয়ে আসতো। মাঝে মাঝে অফিস বন্ধ থাকতে দেখা যায়।

এদের বিরুদ্ধে অভিযোগের শেষ নেই বলেও জানান। সম্প্রতি মাল্টি লেভেল মার্কেটিং (এমএলএম) বা ডিরেক্ট সেলস ব্যবসা বেশ জাঁকিয়ে বসেছে। আর এদের প্রতারণার ফাঁদে পা দিয়ে সর্বস্বান্ত হচ্ছে দেশের লাখখ লাখ মানুষ। অত্যন্ত লোভনীয়, অকল্পনীয়, অফার আর অল্পদিনে কোটিপতি হবার স্বপ্ন নিয়ে ঝুঁকছে দেশের হাজার হাজার বেকার যুবক। শুধু বেকার যুবকই নয়, অনেক শিক্ষিত কর্মজীবী লোকজন ও ছুটছে এই ব্যবসার দিকে। আলাদীনের যাদুর প্রদীপের মত রাতারাতি কোটিপতি হতে কে না চায়! সম্প্রতি র‌্যাবের ভ্রাম্যমান আদালত রাজধানীতে বেশ কয়েকটি এমএলএম কোম্পানিতে অভিযান পরিচালনা করে সীলগালা, অর্থদণ্ড ও কারাদন্ড দিয়েছেন।

এমএলএম ব্যবসার প্রতারণা সম্পর্কে র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট পলাশ কুমার বসু বলেন, এরা গ্রামের সহজ সরল মানুষ ও বেকার শিক্ষিত যুবকদের টার্গেট করে প্রতারণা করে আসছে এরা। বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে তারা গ্রাহকের কাছ থেকে টাকা হাতিয়ে নেয়। এদের বিরুদ্ধে কোন ভুক্তভোগী সুনির্দিষ্ট তথ্য প্রমাণ নিয়ে এলে আমরা অভিযান পরিচালনা করবো বলেও জানান তিনি।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ভাটারা থানা এলাকার অন্তর্গত কুড়িল বিশ্বরোডের জেবুন্নেছা প্লাজায় “এস এম ট্রেডিং” নামের এমএলএম কোম্পানিতে ফ্ল্যাট দেয়ার নাম করে অনেক গ্রাহকের কাছ থেকে টাকা নিয়েছে।

ভুক্তভোগির অভিযোগের ভিত্তিতে সাংবাদিকরা কোম্পানির মালিক শুভ চৌধুরির সঙ্গে কুড়িল বিশ্বরোডে যমুনা ফিউচার পার্কের কিছুটা সামনে ফুটপাতে দেখা হলে তাকে ঐ টাকা সম্পর্কে জানাতে চাইলে ফোন দিয়ে কোম্পানির অন্য লোকজনদের ডেকে এনে মারপিট করেন। এঘটনায় দুই পক্ষ ভাটারা থানায় মামলা করেছেন। মামলার বাদি দৈনিক আমার প্রাণের বাংলাদেশ রিপোর্টার সামছুউদ্দিন জুয়েল বলেন, আমরা বিশ্বরোড হয়ে প্রাইভেটকার যোগে উত্তরার দিকে আসার সময় ফুটপাতে শুভকে দেখে গাড়ি থামিয়ে তার কাছে ভুক্তভোগির টাকা দিবেন কি না সেটা জানতে চাইলেই তিনি রেগে যায়।

পরে এক পর্যায়ে অফিসের লোকজন এনে আমাদের মারপিট করেন। পরে তারা উল্টো আমাদের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজি মামলা করেন। এছাড়াও আরো জানা গেছে, আবাসন ব্যবসার আড়ালে নানাবিধ অনুমোদনহীন ভোগ্যপণের ডিরেক্ট সেলস ব্যবসা করছেন। যাতে অত্যন্ত স্বাস্থ্য ঝুঁকি রয়েছে।

এগুলো বিক্রি করছেন কোন প্রকার ডাক্তারি পরামর্শ ছাড়াই। জুয়েল আরো বলেন, কুড়িল বিশ্বরোডের জেবুন্নেছা প্লাজার সামনে গিয়ে “এস এম ট্রেডিং” সম্পর্কে জানতে পথচারীদের জিজ্ঞাসা করতে থাকলে এর মধ্যও কয়েকজন “এস এম ট্রেডিং” এর প্রতারণার শিকার বলে জানান। এমতবস্থায় “এস এম ট্রেডিংয়ের”এমডি এস এম শুভ চৌধুরি আগ্রাসী মনোভাব নিয়ে এক প্রকার তেড়ে এসে সাংবাদিকদের সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করতে থাকেন এবং আমাদের মারধর করে।

আমরা তো তার অফিসেই গেলাম না তাহলে চাঁদা চাইলাম কখন। কুড়িল বিশ্বরোডে ঘটনার সময় থাকা স্থানীয় ব্যবসায়ীরা জানান, কোম্পানির ভাইস চেয়ারম্যান পলাশ, ডিএমডি লুতফর রহমান, জিএম মোজাম্মেল হোসেনসহ আরো ১৫ থেকে ২০ জন বড় রড, এস এস পাইভ, ও লাঠিসোটা নিয়ে এসে এস এম শুভ চৌধুরির নেতৃত্বে সাংবাদিকদের উপর অতর্কিত হামলা চালায়।

এতে কমবেশী উপস্থিত সব সাংবাদিকসহ স্হানীয়রা আহত হন। এতে জুয়েল নামের একজন মারাত্মক ভাবে আহত হয়ে টঙ্গী সরকারী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। ভাটারা থানার ওসি মোক্তারুজ্জামানের কাছে মামলা সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন, কিছু সাংবাদিক ভাইরা এসেছিলেন একজন ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে মামলা করেছেন তাদের মেরেছেন বলে। দুই পক্ষই মামলা করেছেন। মামলাটি এখন তদন্তাধীন রয়েছে।

#

     আরো পড়ুন:

পুরাতন খবরঃ

শুক্র শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০